জাপান ও যুক্তরাজ্যের পররাষ্ট্র মন্ত্রীরা দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন

জাপানের পররাষ্ট্র মন্ত্রী হায়াশি ইয়োশিমাসা এবং ব্রিটেনের পররাষ্ট্র মন্ত্রী এলিজাবেথ ট্রাস বুধবার তাদের প্রথম টেলিফোন সংলাপে দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আধ ঘন্টা ব্যাপী আলোচনায় তারা যেসব বিষয় নিয়ে কথা বলেছেন তার মধ্যে অবাধ ও মুক্ত ভারত-প্রশান্ত মহাসাগরীয় এলাকা তৈরি করে নিতে একত্রে কাজ করার বিষয়টি অন্তর্ভুক্ত ছিল। নিরাপত্তা সহ অন্যান্য ক্ষেত্রেও সুর্নিদিষ্ট সহযোগিতা এগিয়ে নিতে এই দুই শীর্ষ কূটনীতিবিদ সম্মত হন।

চীনের বিষয়টি চিন্তা করে, পূর্ব এবং দক্ষিণ চীন সাগরে স্থিতাবস্থা বলপূর্বক একপক্ষীয় ভাবে পরিবর্তনের চেষ্টা করা হলে তার কঠোর বিরোধিতা করা হবে বলেও দুই নেতা সম্মত হন।

হায়াশি বলেন ব্রিটেনে অনুষ্ঠিত জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ক আলোচনার সর্বশেষ পর্ব অনুযায়ী কার্বনমুক্ত এক সমাজ বাস্তবায়নে আন্তর্জাতিক প্রচেষ্টায় নেয়া উদ্যোগ এগিয়ে নেয়া অব্যাহত রাখবে জাপান।

২০১১ সালে ফুকুশিমা দাইইচি পরমাণু দুর্ঘটনার পর থেকে জাপানি খাদ্যপণ্য আমদানির ব্যাপারে ব্রিটেনে যে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে, তা দ্রুত তুলে নেয়ার জন্যেও তিনি অনুরোধ জানান।

টিপিপি-১১ নামেও পরিচিত একটি বাণিজ্য চুক্তি আন্তঃপ্রশান্ত মহাসাগরীয় অংশীদারিত্বের জন্য ব্যাপক ভিত্তিক এবং অগ্রগতিশীল চুক্তিতে ব্রিটেনের যোগদানের ক্ষেত্রে কী ধরনের প্রক্রিয়া অনুসরণ করতে হবে তা নিয়েও হায়াশি এবং ট্রাস আলোচনা করেন।