তাপমাত্রার বৃদ্ধি ১.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে সীমিত রাখার লক্ষ্য কপ ২৬’এর

স্কটল্যান্ডের গ্লাসগো’তে অনুষ্ঠিত জাতিসংঘ জলবায়ু সম্মেলন কপ২৬’এর সময় একদিন বাড়ানোর পর, অংশগ্রহণকারীরা শেষ মুহূর্তে পরিবর্তিত একটি চুক্তিতে উপনীত হয়েছেন।

অংশগ্রহণকারীরা, প্রাক-শিল্প যুগের পর্যায়ের চাইতে বৈশ্বিক গড় তাপমাত্রা বৃদ্ধির পরিমাণ ১.৫ ডিগ্রির মধ্যে সীমিত রাখতে প্রচেষ্টা গ্রহণের ব্যাপারে সম্মত হয়েছেন।

আর সম্মেলন থেকে, বিশ্বের দেশগুলোর প্রতি ২০৩০ সালের জন্য তাদের গ্রিনহাউস গ্যাস নিঃসরণ হ্রাসের লক্ষ্যমাত্রা পর্যালোচনা এবং জোরদারকরণের পদক্ষেপ, ২০২২ সালের শেষ নাগাদ সম্পন্নের আহ্বানও জানানো হয়েছে।

এতে ২০১৫ সালের প্যারিস জলবায়ু চুক্তি থেকে আরও জোরালো পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানানো হয়েছে। উল্লেখ্য, সেই চুক্তিতে তাপমাত্রা বৃদ্ধির পরিমাণ ২ ডিগ্রি সেলসিয়াসের যথেষ্ট নিচে রাখতে বলা হয়েছিল। এক্ষেত্রে, নতুন লক্ষ্যমাত্রা হচ্ছে তাপমাত্রা বৃদ্ধির পরিমাণ ১.৫ ডিগ্রির মধ্যে সীমিত রাখা।

গ্লাসগো’তে সম্মত হওয়া বিবৃতিতে, জলবায়ু বিষয়ক পদক্ষেপ নিতে উন্নয়নশীল দেশগুলোর জন্য বর্ধিত আর্থিক সহায়তার বিষয়টিও অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

এতে দেশগুলোকে দূষণ মুক্তকরণের ব্যবস্থা না থাকা কয়লা চালিত বিদ্যুতের ব্যবহার “ফেজ-ডাউন” বা কমানোর অনুরোধ জানানো হয়েছে।

উল্লেখ্য, তৃতীয় খসড়াটিতে “ফেজ-আউট” বা কয়লার ব্যবহার বন্ধ করার আহ্বান জানানো হলেও, এর শর্ত নিয়ে ভারত তাদের উদ্বেগ উত্থাপন করে এবং চূড়ান্ত বিবৃতিতে সেটি পরিবর্তন করে নিতে সমর্থ হয়।