ওকিনাওয়া বন্দরে ঝামা পাথরের বিরুদ্ধে বেষ্টনী স্থাপন

জাপানের দক্ষিণ পশ্চিমাঞ্চলীয় জেলা ওকিনাওয়ার একটি প্রধান দ্বীপের উত্তরাংশে অবস্থিত একটি মৎস্য বন্দরে, ঝামা পাথরের প্রবাহ রোধ করতে একটি বেষ্টনী স্থাপন করা হয়েছে।

চলতি মাসের শুরুর দিক থেকে, জেলাটির উপকূল বরাবর এসকল পাথর বয়ে আসা আরম্ভ হলে স্থানীয় মৎস্য ও পর্যটন খাতের উপর নেতিবাচক প্রভাব পড়ে। উল্লেখ্য, চলতি বছর আগস্ট মাসে প্রশান্ত মহাসাগরের ওগাসাওয়ারা দ্বীপপুঞ্জের অদূরে সাগরের তলদেশের একটি আগ্নেয়গিরির অগ্নুৎপাত থেকে এই পাথর বয়ে আসছে।

আজ শনিবার কর্মীরা, একটি নৌকা ব্যবহার করে কুনিগামি গ্রামের হেনতোনা বন্দরের প্রবেশ পথে এই বেষ্টনী স্থাপন করেন।

এনএইচকের উড়ন্ত ক্যামেরায়, সমুদ্র উপকূলে বিপুল পরিমাণ ঝামা পাথর ভাসমান অবস্থায় দেখা যায়।

গতকাল শুক্রবার থেকে, বন্দর থেকে এসকল পাথর সরানোর কাজ চলমান রয়েছে। কর্মীরা, এসকল পাথর তুলে আনতে বিদ্যুৎ চালিত শোভেল ব্যবহার করছেন।

ঝামা পাথর পরিষ্কারের এই কাজ সম্পন্ন করতে ২ থেকে ৩ সপ্তাহের প্রয়োজন হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

৭০এর কোঠার বয়সী জনৈক মৎস্যজীবি, ঝামা পাথর আসা আরম্ভ হওয়ার পর থেকে মাছ ধরতে বের হননি বলে উল্লেখ করেন।