বোয়িং ও নাসা বলছে স্টারলাইনারের পৃথিবীতে প্রত্যাবর্তন আরও বিলম্বিত হবে

যুক্তরাষ্ট্রের বিশাল আকারের বিমান নির্মাতা বোয়িং'এর নতুন স্টারলাইনার মহাকাশযান, যান্ত্রিক সমস্যার কারণে প্রাথমিকভাবে নির্ধারিত সময়ের চেয়ে অনেক পরে পৃথিবীতে ফিরে আসবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

মার্কিন মহাকাশ এজেন্সি নাসা এবং বোয়িং বুধবার এই ঘোষণা দিয়েছে।

স্টারলাইনার নাসার দু'জন নভোচারীকে নিয়ে যাত্রা করেছিল এবং জুন মাসে আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনে ভিড়েছিল।

মহাকাশযানটির প্রাথমিকভাবে প্রায় এক সপ্তাহের মধ্যে ক্রুদের পৃথিবীতে ফিরিয়ে আনার পরিকল্পনা করা হয়েছিল, তবে এর থ্রাস্টার ব্যবস্থায় খুঁজে পাওয়া ত্রুটির কারণে আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনে এটা নোঙর করা অবস্থায় আছে।

নাসা এবং বোয়িং বলেছে যে বর্তমানে মহাকাশযানের প্রপালশন ব্যবস্থার ভূমিতে চালানো পরীক্ষা তারা করছে এবং পরীক্ষার ফলাফল পর্যালোচনা করার পর ফিরে আসার নতুন একটি তারিখ নির্ধারণের সিদ্ধান্ত তারা গ্রহণ করবে।

দুই মহাকাশচারীর কোনোরকম স্বাস্থ্য সমস্যার খবর পাওয়া যায়নি।

স্টারলাইনার পরীক্ষামূলক ফ্লাইটের চূড়ান্ত পর্যায়ে রয়েছে। নাসার অনুমোদন পাওয়া গেলে বোয়িংয়ের মহাকাশযানটি নভোচারীদের পরিবহনের নতুন একটি উপায় হিসাবে ব্যবহৃত হবে।