জাপানে মে মাসে দেউলিয়া হয়ে পড়া ব্যবসার সংখ্যা ১২ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চে

একটি জরিপে দেখা গেছে যে জাপানে মে মাসে গত ১২ বছরের মধ্যে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক ব্যবসা দেউলিয়া হয়েছে৷ টিকে থাকার সংগ্রামে লিপ্ত ব্যবসাসমূহের জন্য মহামারি-সম্পর্কিত সরকারি সহায়তা শেষ পর্যায়ে চলে আসার মাঝে এই ব্যর্থতার খবর এলো।

গবেষণা প্রতিষ্ঠান তেইকোকু ডেটাব্যাংক জানিয়েছে, গত মাসে ১,০১৬টি কোম্পানি শেয়ার বিক্রি করা শুরু করেছে। এই সংখ্যা বছর ওয়ারী হিসাবে ৪৬ শতাংশের বৃদ্ধি।

এই জরিপে কমপক্ষে ১০ মিলিয়ন ইয়েন বা ৬৩ হাজার ডলারের বেশি ঋণ নিয়ে দেউলিয়া হয়ে যাওয়া ব্যবসাগুলোকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়৷

২০১২ সালের মে মাসের পর থেকে এই প্রথম দেউলিয়া হয়ে পড়া ব্যবসার সংখ্যা ১ হাজার ছাড়াল৷

ব্যবসায়িক খাতের দিকে লক্ষ্য করলে দেখা যাচ্ছে, পরিবহন শিল্পে দেউলিয়ার সংখ্যা দ্বিগুণেরও বেশি বৃদ্ধি পেয়েছে।

এছাড়া, রেস্তোরাঁ এবং পানশালার সংখ্যাও ২৫ শতাংশ বেড়েছে।

৮০ শতাংশেরও বেশি ব্যর্থতার ক্ষেত্রে দায়ী মন্থর বিক্রয়।

তেইকোকু ডেটাব্যাংকের ভাষ্যমতে, শ্রমিক ঘাটতির কারণেও কিছু ব্যবসা নিজেদেরকে দেউলিয়া হিসাবে নিবদ্ধ করেছে। তারা বলছে, ক্ষুদ্র ও মাঝারি আকারের ব্যবসাগুলো উচ্চ বেতন প্রদান এবং পর্যাপ্ত শ্রমিক সংখ্যা সুরক্ষিত করার ক্ষেত্রে চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হচ্ছে।