তিয়েনআনমেন ঘটনায় নিহতদের স্মরণে টোকিওতে সভার আয়োজন

৩৫ বছর আগে বেইজিংয়ের তিয়েনআনমেন চত্বরে গণতন্ত্রপন্থী বিক্ষোভকারীদের ওপর চীনের দমন অভিযানের সময় যারা নিহত হন, তাদের স্মরণে টোকিওতে আয়োজিত এক সভায় লোকেরা যোগ দিয়েছেন।

এই মারাত্মক ঘটনার ৩৫তম বার্ষিকী উপলক্ষ্যে টোকিওর চিইয়োদা ওয়ার্ডে সোমবার রাতে এই স্মরণ সভার আয়োজন করা হয়। জাপানি মানবাধিকার কর্মী এবং চীনা ও হংকং-এ জন্মগ্রহণকারী বাসিন্দারা সহ প্রায় ৫০ জন ব্যক্তি এই স্মরণ সভায় যোগ দেন।

সভার স্থানটিকে "গণতন্ত্রের দেবী"-র একটি ক্ষুদ্র প্রতিরূপ দিয়ে সজ্জিত করা হয়। উল্লেখ্য, স্ট্যাচু অফ লিবার্টির আদলে বানানো এর মূল স্ট্যাচুটি গণতন্ত্রপন্থীদের বিক্ষোভের সময় তিয়েনআনমেন চত্বরে স্থাপন করা হয়েছিল।

স্মরণ সভায় মোমবাতি দিয়ে সাজিয়ে "৮৯৬৪" নম্বরটি লেখা হয়, বহু লোক যে সংখ্যাকে ১৯৮৯ সালের ৪ঠা জুন ঘটে যাওয়া ঘটনার সমার্থক বলে গণ্য করেন।

চীন থেকে আসা এক ব্যক্তি ডং পেং বলেন যে তার বড় বোন ৩৫ বছর আগে ওই বিক্ষোভে অংশ নিয়েছিলেন। তিনি বলেন, বেইজিং যে চেষ্টা করছে মানুষ এই ঘটনাটি ভুলে যাক, সেটা তিনি সহ্য করতে পারেন না।

হংকং থেকে আগত অ্যালরিক লি বলেন, জাতীয় নিরাপত্তা আইন কার্যকর হওয়ার পর থেকে ওই ভূখণ্ডে কোনো স্বাধীনতা নেই। তিনি বলেন যে এখন তিনি বুঝতে পারছেন চীনের মানুষের তখন কেমন অনুভুতি হয়েছিল।