তাইওয়ানের চারপাশে চীনা সামরিক বাহিনী মহড়া চালাচ্ছে

চীনা সামরিক বাহিনী ঘোষণা করেছে যে তারা বৃহস্পতিবার সকালে তাইওয়ানের কাছে সামরিক মহড়া পরিচালনা করেছে।

চীনের পূর্বাঞ্চলীয় কমান্ড জানিয়েছে, স্থানীয় সময় সকাল ৭টা ৪৫ মিনিটে কিনমেন দ্বীপ ও অন্যান্য এলাকায় মহড়া শুরু হয়।

তারা আরও জানায় যে, বৃহস্পতিবার ও শুক্রবার সামরিক মহড়া অনুষ্ঠিত হবে। চীনের সেনাবাহিনী, নৌবাহিনী, বিমানবাহিনী ও রকেট বাহিনী এতে অংশ নিচ্ছে।

তাইওয়ানের স্বাধীনতার প্রত্যাশা করা লোকজনকে ক্ষুদ্র একটি গোষ্ঠি হিসাবে কমান্ড বর্ণনা করেছে। তারা জানায় যে, মহড়াগুলি বহিরাগত শক্তি এবং ক্ষুদ্র গোষ্ঠিগুলোর হস্তক্ষেপের বিরুদ্ধে একটি শক্তিশালী সতর্কতা।

তাইওয়ানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় চীনের ঘোষণার জন্য দুঃখ প্রকাশ করে বলেছে যে এটি একটি অযৌক্তিক উস্কানি এবং এমন একটি কাজ যা অঞ্চলের শান্তি ও স্থিতিশীলতা নষ্ট করছে।

চীনা সামরিক বাহিনী এর আগে বলেছিল যে তারা তাইওয়ানের চারপাশে মহড়া চালিয়েছে। গত বছর তাইওয়ানের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েন যখন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ছিলেন এবং বর্তমান প্রেসিডেন্ট লাই চিং-তে গত বছরের আগস্টে ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসাবে যখন মার্কিন সফরে গিয়েছিলেন সামরিক বাহিনী তখন এই মহড়ার ঘোষণা দিয়েছিল।

তাইওয়ানের প্রশাসনের ওপর চাপ বৃদ্ধি করে নিচ্ছে চীন। সোমবার দায়িত্ব নেওয়া প্রেসিডেন্ট লাই বলেছেন, তিনি এক-চীন নীতিকে স্বীকৃতি দেবেন না।