যুদ্ধবিরতির আলোচনা 'প্রায় অচলাবস্থায়': কাতারের প্রধানমন্ত্রী

ইসরায়েল ও হামাসের মধ্যে আলোচনার আয়োজন করে মূলত কাতার গাজায় উত্তেজনা হ্রাস করার চেষ্টা করেছে। দেশটি এই উদ্দেশ্যে জিম্মিদের মুক্তি নিশ্চিত করাসহ যুদ্ধবিরতিতে পৌঁছানোর জন্য কয়েক মাস ধরে কাজ করেছে। তবে, দেশটির নেতা এখন স্বীকার করেছেন যে এই আলোচনা "প্রায় অচলাবস্থার মধ্যে রয়েছে।"

প্রধানমন্ত্রী মোহাম্মদ বিন আবদুল রহমান আল-থানি বলেছেন, জিম্মিদের বিষয়ে কথা বলার আগে হামাস যুদ্ধের অবসান দেখতে চায়। তবে তিনি আরও বলেন, এই ক্ষেত্রে ইসরায়েলের অবস্থান ভিন্ন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, "যতক্ষণ পর্যন্ত এই দুটি বিষয়ের মধ্যে কোনো ঐক্য সৃষ্টি না হবে, ততক্ষণ পর্যন্ত আমরা কোনও ফলাফল পাব না।"

তিনি আরও বলেন, দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর রাফাহতে ইসরায়েলি আক্রমণ এই আলোচনাকে "পিছিয়ে দিয়েছে"।

ইসরায়েলের প্রতিরক্ষা বাহিনী মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে বলেছে যে, গতকাল পর্যন্ত, তারা গাজা জুড়ে ১০০টিরও বেশি লক্ষ্যবস্তুতে হামলা চালিয়েছে এবং অসংখ্য হামাস যোদ্ধাকে "নিশ্চিহ্ন" করেছে।

এদিকে আল জাজিরা জানিয়েছে যে নুসাইরাত শহরের কেন্দ্রীয় অঞ্চলে বিমান হামলায় একটি আবাসিক ভবনে আঘাতের ফলে শিশুসহ কমপক্ষে ৪০ জন নিহত হয়েছেন।