ম্যাক্রনের সাথে বৈঠকে 'নতুন শীতল যুদ্ধ' এড়ানোর আহ্বান শি'র

চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং তার ফরাসি প্রতিপক্ষ এমানুয়েল ম্যাক্রনকে বলেছেন "নতুন শীতল যুদ্ধ" প্রতিরোধে চীন ও ফ্রান্সের একসাথে কাজ করা উচিত।

সোমবার প্যারিসে ম্যাক্রোন-এর সাথে সাক্ষাৎ করেন শি। চীন ও ফ্রান্সের মধ্যে কূটনৈতিক সম্পর্ক প্রতিষ্ঠার ৬০তম বার্ষিকীর সময়কালীন এই সফরটি একইসাথে গত পাঁচ বছরের মধ্যে শির প্রথম ইউরোপ সফরের অংশও।

এই সফরকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাথে বিরোধপূর্ণ সময়ে ফ্রান্সের সাথে সম্পর্ক জোরদার করার জন্য বেইজিংয়ের একটি প্রচেষ্টা হিসেবে মনে করা হচ্ছে। শি ম্যাক্রনকে বলেন, তাদের দুই দেশের স্বাধীনতা সমুন্নত রাখা এবং বিশ্বের ন্যায়সঙ্গত ও নিয়মভিত্তিক বহুমাত্রিক-মেরুকরণের প্রসারে চেষ্টা করা উচিত।

বৈঠকের পর এক যৌথ সংবাদ সম্মেলনে ম্যাক্রন বলেন, দেশ দুটি বৈশ্বিক স্থিতিশীলতা নিশ্চিত করতে কার্যকর ভূমিকা রাখতে সক্ষম হবে।

বৈঠকটি এমন এক সময়ে অনুষ্ঠিত হলো যখন বেইজিং কিছু নির্দিষ্ট খাতে ভর্তুকি দেওয়ার জন্য সমালোচিত হচ্ছে। বিশেষজ্ঞদের ভাষ্যমতে, এরফলে অন্যান্য দেশের সাথে চীনের বাণিজ্যিক ভারসাম্যহীনতার পথ প্রশস্ত হচ্ছে। বৈঠকে ম্যাক্রন ন্যায্য প্রতিযোগিতার কাঠামোর প্রয়োজনীয়তার প্রতি জোর দিয়েছেন।

দুই নেতা ইউক্রেনে রাশিয়ার আগ্রাসন নিয়েও আলোচনা করেছেন। ম্যাক্রন বলেন, সামরিক উদ্দেশ্যে ব্যবহার করা যেতে পারে এমন পণ্যের উপর কঠোর রপ্তানি নিয়ন্ত্রণ আরোপ করার প্রতিশ্রুতিসহ রাশিয়ার কাছে কোনো অস্ত্র বিক্রি না করা সংশ্লিষ্ট চীনের প্রচেষ্টাকে স্বাগত জানায় ফ্রান্স।

শি বলেন, শুধুমাত্র দর্শক না হয়ে বরং ইউক্রেনে শান্তি ফিরিয়ে আনার প্রচেষ্টায় ভূমিকা রাখছে চীন।