ফ্যাশন ডিজাইনার কাৎসুরা ইয়ুমি প্রয়াত

জাপানে ব্রাইডাল ফ্যাশন প্রবর্তনের জন্য সুপরিচিত ফ্যাশন ডিজাইনার কাৎসুরা ইয়ুমি পরলোকগমন করেছেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৯৪ বছর।

কাৎসুরা টোকিওতে জন্মগ্রহণ করেন। বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক হওয়ার পর তিনি ফ্যাশন এবং ডিজাইন নিয়ে লেখাপড়া করতে ফ্রান্সে যান।

কাৎসুরার আনুষ্ঠানিক ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে যে তিনি ১৯৬৫ সালে টোকিও'র আসাকুসাতে শুধুমাত্র ওয়েডিং গাউন বিক্রি করার জাপানের প্রথম স্টোরটি খোলেন। জাপানে তিনিই প্রথম ব্রাইডাল শো'র আয়োজন করেছিলেন।

ফ্যাশনদুরস্ত ডিজাইনের এমন পোশাক তিনি তৈরি করতেন যা পরিধানকারীর সৌন্দর্যকে আরো বেশি ফুটিয়ে তোলে। একটা সময় যখন জাপানে জাপানি কনেদের মধ্যে সাধারণভাবে ওয়েডিং ড্রেস পরার চল ছিল না, তখন কাৎসুরার তৈরি করা পোশাক ব্যাপকভাবে এদেশে বিবাহ অনুষ্ঠানের ধরনের ওপর প্রভাব ফেলেছিল।

১৯৮০র দশক থেকে কাৎসুরা নিউইয়র্ক এবং প্যারিস'সহ ফ্যাশন শো'এর জন্য নামকরা বিশ্বের ৩০টিরও বেশি জায়গায় শো করেছেন। সেই সময় তিনি জাপানের নেতৃস্থানীয় ডিজাইনার হিসেবে সুপরিচিত হয়ে ওঠেন।

১৯৯৩ সালে ইস্টারের সমাবেশে দ্বিতীয় পোপ জন পলের পরা আনুষ্ঠানিক পোশাকের ডিজাইনের জন্যও পরিচিত ছিলেন কাৎসুরা।

গতমাসেও কাৎসুরা টোকিওতে একটি শো করেছেন। তিনি প্রায় ৭০ টি নতুন পণ্য প্রদর্শন করেন। তিনি যা করতে ভালবাসতেন সেই কাজ তিনি জীবনের শেষ পর্যন্ত করে গিয়েছেন।