ভূমিকম্প বিধ্বস্ত সুযু শহরে অস্থায়ী আবাসনে স্থানান্তরিত হচ্ছেন উদ্বাস্তুরা

নববর্ষের দিনে মধ্য জাপানের নোতো উপদ্বীপে আঘাত হানা ভূমিকম্পে অনেক বাড়িঘর মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার পর, ইশিকাওয়া জেলার সুযু শহরে উদ্বাস্তু লোকজন অস্থায়ী আবাসনে স্থানান্তরিত হতে শুরু করেছেন।

সুযু শহরের পাঁচটি স্থানে ৪শ ৫৬টি অস্থায়ী ঘর তৈরি করা হচ্ছে। প্রথম ৪০টির নির্মাণ কাজ শোইন প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রাঙ্গণে সম্পন্ন হয়েছে।

আজ শুক্রবার সকাল ৮টার ঠিক পরপরই লোকজন পরিবার-পরিজন নিয়ে সেখানে আসতে শুরু করেন। তারা আশ্রয়কেন্দ্র থেকে বিছানাপত্র এবং নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি নিয়ে আসেন।

৪০-এর কোঠার বয়সী একজন নারী তার মেয়েকে নিয়ে অস্থায়ী বাসভবন দেখতে আসেন। একই এলাকায় থাকা তাদের বাড়িটি ভূমিকম্পে বিধ্বস্ত হয়।

তারা তাদের সাথে জামাকাপড় নিয়ে আসেন এবং বিদ্যুৎ ও পানির সরবরাহ পরীক্ষা করেন।

ওই নারীর ভাষ্যানুযায়ী, তিনি যে ঘরটির ভিতরে যেতে পারবেন এখবর তাকে জানানো হলে তিনি খুব খুশি হন। তিনি এও বলেন যে আশ্রয়কেন্দ্রে গোপনীয়তার জন্য শুধুমাত্র একটি পর্দা ছিল। তবে, তিনি এখন শান্তিতে এবং শান্ত পরিবেশে বসবাস করতে পারবেন। তিনি এও বলেন যে তার ঘরটি তার প্রত্যাশার চেয়ে আরও প্রশস্ত এবং উষ্ণ।

তার মেয়ে বলেন, ভবিষ্যৎ এখনও অনিশ্চিত হলেও ঘরটিতে বিদ্যুৎ ও সরাসরি পানি সরবরাহ থাকায় তিনি কৃতজ্ঞ বোধ করছেন।